যেভাবে ব্লগার সাইটের স্পিড বাড়াবেন। how to make blogger site load faster



আপনার ওয়েবসাইট অথবা ব্লগ সাইট প্রথম কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে ওপেন না হয় তাহলে ভিজিটর আসার আগেই চলে যাবে। যদি আপনার সাইট প্রথম ৩ সেকেন্ডের মধ্যে লোড না নেয় তাহলে আপনার সাইট অনেক স্লো। আপনার ওয়েব সাইটের ডিজাইন যদি অনেক ভাল হয় এবং অনেক ভাল কন্টেন্ট থাকে কিন্তূ আপনার সাইট অনেক স্লো তাহলে কোন লাভ নেই। কারন প্রত্যেক মুহুর্তই গুরুত্বপূর্ণ। তাই আপনি যদি ভাল কিছু করতে চান তাহলে অবশ্যই আপনার সাইটের লোডিং স্পিড বাড়াতে হবে। আজকের আর্টিকেল এ আমি, যেভাবে আপনার ব্লগার সাইটের স্পিড বাড়াবেন সেই বিষয় নিয়ে  লিখব।

(নোটঃ এই পোস্টটি অবশ্যই যাদের ব্লগার প্লাটফর্মে ব্লগ রয়েছে তাদের জন্য)

যদি আপনার এই সমস্যা হয় যে আপনার ব্লগ সাইট লোড নিতে অনেক সময় নেয় তাহলে এই পোস্ট টি আপনার জন্য। আপনার ব্লগ সাইটের লোডিং স্পিড বাড়ানোর জন্য আপনাকে কয়েকটি সহজ কাজ করতে হবে, তো চলুন শুরু করা যাক।

#১ হোমপেজে পোস্ট এর সংখ্যা ১০ এর নিচে রাখবেন। 

আপনি যদি আপনার ব্লগের হোমপেজে অনেক পোস্ট দেখান, এই পোস্টগুলি লোড নিতে অনেক সময় নিবে। একজন ব্লগার হিসেবে আমি বলব এই পোস্ট সংখ্যা ১০ এর নিচে রাখবেন৷ শুধু আমি না, আপনি যদি একজন ব্লগার এএক্সপার্ট এর কাছে জিজ্ঞেস করেন বা তাদের পোস্ট দেখেন, দেখবেন তারাও আপনাকে এই কথাই বলবে। কারন,
আপনার পোস্টগুলি যদি অনেক বড় হয় এবং এই পোস্টগুলিতে যদি অনেক ইমেজ থাকে তাহলে এই পোস্টগুলি লোডিং হতে অনেক সময় নেবে।

#২ ব্লগে ইমেজ আপলোড করার আগে সাইজ পরিবর্তন করে ছোট করে নিবেন

আপনি ইমেজ আপলোড করার সময় যদি অরিজিনাল সাইজের ইমেজ আপলোড করেন তাহলে এই ইমেজ লোডিং হতে অনেক সময় নেবে এবং ব্লগ সাইট স্লো করে দেবে। এই জন্য আপনাকে অবশ্যই ইমেজ width সম্পর্কে জানতে হবে। আপনার ব্লগের জন্য যে সাইজের ইমেজ দরকার সে অনুযায়ী আপলোড করবেন। বেশিরভাগ ব্লগের ইমেজ সাইজ ৬০০-৮০০px হয়ে থাকে। আপনি যদি আপনার ব্লগের ইমেজ সাইজ সম্পর্কে না জানেন তাহলে অবশ্যই জেনে নিবেন।
ইমেজ রি-সাইজ করার জন্য ফটোশপ অনেক ভাল। আপনি চাইলে pixlr ব্যবহার করতে পারেন।

#৩ ব্লগের জন্য আলাদা image host ব্যবহার করতে পারেন

ইমেজ হোস্ট ব্যবহার করে আপনি আপনার ব্লগ এবং ব্লগের ইমেজ আলাদা রাখতে পারেন। আপনি যদি ইমেজ হোস্ট ব্যবহার করেন তাহলে আপনার ব্লগের ইমেজ আলাদা ভাবে লোড নেবে ফলে আপনার ব্লগ অল্প সময়ের মধ্যে লোডিং হবে।
জনপ্রিয় কয়েকটি ইমেজ হোস্ট হল, imgur, google photos, flickr

#৪ অপ্রয়োজনীয় "widgets" ডিলিট করে দিন

সাধারণত ব্লগাররা তাদের ব্লগে অনেক widgets ব্যবহার করে। নিজেকে প্রশ্ন করুন; আসলেই কি এই widgets গুলো আপনার দরকার? যদি না হয় তাহলে ডিলিট করে দিন। কিছু অপ্রয়োজনীয় widget রয়েছে যেমন, profile widget, email subscription, blog archive, search ইত্যাদি।

#৫ থার্ড পার্টি গ্যাজেটস গুলো মিনিমাইজ করুন অথবা ডিলিট করে দিন। 

twitter, Instagram, pinterest এবং অন্যান্য সোস্যাল প্লাটফর্ম এর  থার্ডপার্টি গ্যাজেট গুলি লোড নিতে অনেক সময় নেয়। তাই প্রয়োজনীয় গ্যাজেট বাদে বাকি সব ডিলিট করে দিন। আপনি এই গ্যাজেটগুলির লিংক আপনার about us পেজ অথবা আপনার সাইট বারে একটা গ্যাজেট দিতে পারেন।

#৬ html/javascript Gadgets কম ব্যবহার করবেন 

ব্লগ কাস্টমাইজড করার জন্য এটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ কিন্তু আপনি যদি এগুলো বেশি ব্যবহার করেন তাহলে আপনার সাইট স্লো হয়ে যাবে। যদিও ব্যবহার করেন তাহলে সাইটবারে রাখবেন যাতে লোড নিতে নিতে ভিজিটররা পোস্ট পড়তে পারেন।

#৭ কম কাস্টম ফন্ট ব্যবহার করুন

আমরা ব্লগসাইট সুন্দর করার জন্য অতিরিক্ত কাস্টম ফন্ট ব্যবহার করি। কিন্তু আমরা জানি না যে এর ফলে আমাদের সাইট স্লো হয়ে যায়।

#৮ ব্লগ ডিজাইন করার জন্য বড় ইমেজ ব্যবহার করবেন না 

আপনার ব্লগ ডিজাইন করার জন্য যদি বড় ইমেজ ব্যবহার করে থাকেন তাহলে এখনই ডিলিট করে দিন। বিশেষ করে আমরা header এ আমরা বড় সাইজের ইমেজ ব্যবহার করে থাকি। ইমেজ সাইজ অবশ্যই ২০০-৪০০ kb হওয়া উচিত।

Post a Comment

0 Comments